কবরের প্রশ্ন এবং আমাদের অজ্ঞতা

0কবরের  প্রশ্ন এবং আমাদের অজ্ঞতা  কবর, প্রতিটি মানু‌ষেরই নির্ধারিত একটি গন্তব্য। জন্ম যেমন সত্য, মৃত্যুর পর কবরের বিভীষিকাও তেমন সত্য। আল্লাহ্ মানুষকে সৃষ্টি করেছেন পরীক্ষা করার জন্য। এই পরীক্ষার প্রথম ধাপ হচ্ছে কবর। কবরে পরীক্ষিত বিষয় কী কী  হবে তাও তিনি রাসুলুল্লাহ সাঃ এর মাধ্যমে আগেই জানিয়ে দিয়েছেন।  আমাদের উপমহাদেশের সকল আলেম উলামারা প্রতিনিয়তই বিভিন্ন

আল্লাহ্‌র হিদায়াত পাওয়ার শর্তসমূহ কী

1পৃথিবীতে আল্লাহ জ্বীন এবং মানুষকে সৃষ্টি করেছেন শুধুমাত্র আল্লাহর ইবাদতের জন্য। অর্থাৎ জ্বীন এবং মানুষ দুনিয়াতে তাদের জীবন অতিবাহিত করবে আল্লাহর সন্তুষ্টি অর্জনের জন্য। আল্লাহর সন্তুষ্টি অর্জন করতে পারাটা হচ্ছে “হিদায়াত “। অর্থাৎ যারা আল্লাহর রহমতে হিদায়াত প্রাপ্ত তাঁরাই শুধুমাত্র ইবাদতের মাধ্যমে আল্লাহর সন্তুষ্টি অর্জন করতে পারে। প্রতিটি মানুষের হিদায়াত প্রাপ্ত হওয়াটা একমাত্র আল্লাহর হাতে।

কুরআন কেন নাযিল হয়েছে

0 পবিত্র কুরআন একটি ঐশী গ্রন্থ। যা সরাসরি আল্লাহর কাছ থেকে মুহাম্মদ সাঃ এর মাধ্যমে বিশ্ববাসীর জন্য প্রেরিত হয়েছে। এই কুরআন আল্লাহ্ কেন নাযিল করলেন? কুরআন থেকে কী পাওয়া যাবে? কুরআন কাদের জন্য রহমত? কুরআন থেকে কারা হিদায়াত পাবে? কুরআনের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য কী? ইত্যাদি প্রশ্নের উত্তর আমরা পাওয়ার চেষ্টা করবো ইনশাআল্লাহ। কুরআন এসেছে আল্লাহর

আসসালামু আলাইকুম

‘আসসালামু আলাইকুম’- সম্মানসূচক সম্বোধন নয়!

0মুসলিমরা সম্বোধনের ক্ষেত্রে আসসালামু আলাইকুম বলে থাকে। ইহুদি এবং খ্রিস্টানদের মাঝেও শ্যালম(হিব্রু ভাষায় সালামের সমার্থক শব্দের) প্রচলন আছে। এই লেখাটিতে সালামের বৈশিষ্ট্য, প্রচলিত ব্যবহার এবং প্রকৃত অর্থ তুলে ধরার চেষ্টা করবো। প্রচলিত প্রয়োগ বাংলাদেশে আসসালামু আলাইকুম কথাটি সাধারণত বয়সে বা, পদমর্জাদায় বড় কাউকে সম্মান দেখানোর জন্য ব্যবহার করা হয়(ব্যতিক্রমও আছে)। অনেকে জোর করে তার অধীনস্থদের

বই রিভিউ: হাদিসের নামে জালিয়াতি

0পবিত্র কুরআনের পরে ইসলামি জ্ঞানের দ্বিতীয় ও বিশুদ্ধতম উৎস হলো হাদিস।আমাদের সমাজে বহু হাদিস প্রচলিত আছে।কিন্তু কেউ একটি বাণী শুনিয়ে শেষে রাসূল বলেছেন ট্যাগ লাগিয়ে দিলেই কি তা হাদিস হয়ে যায়? আজকে আমরা আলোচনা করব সেই বিষয়েই। এই বাংলা অঞ্চলে কুরআন হাদিসের সহিহ জ্ঞান রাখে এই সংখ্যাটা নিতান্তই কম।এমনকি মাদরাসা ফারেগ অনেক তথাকথিত আলেমও তাদের

মুনাজাত

রহমাতুল্লিল আলামীন (সংক্ষিপ্ত জিবনী)

0রহমাতুল্লিল আলামীন (সংক্ষিপ্ত জিবনী)                       -বাংঙ্গালি কবি সাইমুন খান আইয়ামে জাহেলিয়াত যুগে যখন চরম উচ্ছৃঙ্খলতা, পাপাচার, দুরাচার, ব্যাভিচার, মিথ্যা,কন্যা শিশু হত্যা,ধর্ষন, লুন্ঠন, মদ্যপান, জুয়ায় ভরপুর ছিল। অন্যায়-অপরাধ, দ্বন্ধ-সংঘাত, সন্ত্রাস-নৈরাজ্য, নৈরাশ্য আর হাহাকার বিরাজ করছিল ঠিক এমন সময় মানবতার মুক্তির দিশারী সর্বশ্রেষ্ঠ মহামানব ও খাতামুন নাবিয়্যীন

আল্লাহ এক জন

খ্রিস্টান সন্ন্যাসীদের প্রতি নবীজির অঙ্গীকারনামা

0খ্রিস্টান সন্যাসীদের প্রতি নবীজির অঙ্গীকারনামা একটি ঐতিহাসিক দলিল হিসেবে সমাদৃত। পৃথিবীর প্রাচীনতম গীর্জাগুলোর মধ্যে একটি হচ্ছে সেইন্ট ক্যাথরিনের গীর্জা। সিনাই পর্বতের কাছে অবস্থিত সেই চার্চে এই অঙ্গীকারনামা সংরক্ষিত আছে। আপনি অমুসলিম হলেও এই বিষয়টি পড়ে দেখতে পারেন, ঐতিহাসিক ভিত্তি আছে। ঘটনাটি কি ছিল ৬২৮ খ্রিস্টাব্দে খ্রিস্টানদের একদল প্রতিনিধি ঐ গীর্জা থেকে গিয়ে রাসুলুল্লাহ(সাঃ) এর নিকট

ইসলামের মৌলিক বিশ্বাস

ইসলাম ধর্মের মৌলিক বিশ্বাসগুলো কি কি?

0 ‘ইসলাম’ শব্দের অর্থ আত্মসমর্পণ এবং এই শব্দের উৎপত্তি আরবি শব্দমূল ‘সলম’ থেকে যার অর্থ শান্তি। ইসলামিক পরিভাষায় একমাত্র সৃষ্টিকর্তা আল্লাহর কাছে আত্মসমর্পণ করে শান্তি লাভ করার ধর্মকেই বলা হয় ইসলাম ধর্ম। একমাত্র আল্লাহকে সৃষ্টিকর্তা হিসেবে বিশ্বাস এবং মুহাম্মদ(সাঃ) কে সর্বশেষ বার্তাবাহক(স্রষ্টার) বলে মেনে নেয়াটা ইসলামের মৌলিক শিক্ষা। যারা এই ধর্ম অনুসরণ করে তাদেরকে বলা

পৃথিবীর বিভিন্ন ধর্মবিশ্বাস

সবগুলো ধর্ম বা, Religion সম্পর্কে জানুন

0ধর্ম কাকে বলে? ধর্ম কাকে বলে বা, ধর্ম কি এই প্রশ্নে উত্তর দিতে হলে এই শব্দটির উৎস জানতে হবে।  ধর্ম শব্দের ইংরেজী প্রতিশব্দ ‘Religion’. এখন বাংলাতেও ধর্ম বলতে সাধারণত ‘Religion’ বুঝায়। তবে বাংলায় এর অর্থটা কিছুটা আলাদা। ধর্ম শব্দটি সংস্কৃত √ধৃ থেকে উৎপন্ন। সেক্ষেত্রে কোন কিছু ধারণ করা বুঝাতেই শব্দটি ব্যবহৃত হয়। আগুনের ধর্ম পোড়ানো,