বিজ্ঞাপন লেখার পদ্ধতি

বিজ্ঞাপন লেখার ৫ টি নিয়ম

1

একটি বিজ্ঞাপনকে কার্যকরী করে তুলতে হলে এমনভাবে লিখতে হবে যাতে পাঠক সেটির প্রতি আকৃষ্ট হয়, আগ্রহী হয়ে ওঠে এবং পণ্য কেনার প্রতি উৎসাহী হয়। এই লেখাটিতে বিজ্ঞাপন লেখার নিয়ম সম্পর্কে কিছু ধারণা দেয়ার চেষ্টা করবো। নিয়ম না বলে টিপস বললেই সেটি আরো বেশী প্রাসঙ্গিক হয়।

বিজ্ঞাপন মানে কি?

এটি এক ধরণের একমুখী যোগাযোগ পদ্ধতি যার মাধ্যমে কোন ব্যক্তি বা, প্রতিষ্ঠান তাদের পণ্যের প্রচার, প্রসার এবং বিক্রির চেষ্টা করে। বিজ্ঞাপনের বিভিন্নরকম উদ্দেশ্য থাকে। সব সময় যে এর মাধ্যমে বিক্রি করবে এমন না। মানুষের অবচেতন মনে ঐ পণ্যের নামটি কৌশলে ঢুকিয়ে দেয়ার কাজটাই মূলত বিজ্ঞাপনের মাধ্যমে করা হয়।

বিজ্ঞাপন লেখার কৌশল বা, নিয়ম

অনেক সময় দেখা যায় বিজ্ঞাপনগুলো দেখে দর্শক একবারেই বুঝে যায় যে এটি বিজ্ঞাপন, তাদের আগ্রহ নেই এমন সব বিষয় সামনে আসতে থাকে। আমাদের সংস্কৃতির সাথে মিল নেই, বিজ্ঞাপনের ভাষায় কোন আকর্ষণ নেই এমন হলে সেটি ব্যর্থ হতে বাধ্য। একটি কার্যকর বিজ্ঞাপন লিখতে হলে এই ৫ টি বিষয় আপনার কাজে লাগবে-

১. ছোট এবং সহজ বাক্য

আপনার মনে হতে পারে যে বড় বাক্যে পুরো ব্যাপারটা বুঝিয়ে বলা দরকার। বাস্তবে দেখা যায়, মানুষেরা বড় বাক্য পড়ার প্রতি আগ্রহ দেখায় না। খুব দ্রুত তাদের আগ্রহের বিষয়গুলো পরিবর্তিত হতে থাকে। হয়তো মূল বিষয়টিই তারা এড়িয়ে যাবে। তাই, ছোট এবং সহজ বাক্যে সরাসরি পণ্যের কথা বলুন।  এতে তারা বেশী আগ্রহী হবে। শুরুর বাক্যটিই যেন পাঠকের মনে নাড়া দিয়ে যায়।

২. আলাদা ধরণের বাক্যের প্রবাহ

বিরক্তিকর যেন না হয়ে যায় সেদিকে খেয়াল রাখুন। বাক্যের প্রবাহ যেকোন লেখাকে আকর্ষণীয় করে তোলে। বিজ্ঞাপনের ক্ষেত্রেও চমৎকার বাক্যবিন্যাস মানুষকে বেশী আকৃষ্ট করে। খেয়াল করে দেখবেন, এরকম আকর্ষণীয় বিজ্ঞাপনগুলো অনেকদিন মনে থাকে। অনেক সময় মানুষেরা নিজেরাই এগুলোকে ভাইরাল করে দেয়।

৩. সংক্ষিপ্ত রাখুন

সব বুঝিয়ে বলার চেষ্টা থেকে সরে আসুন। যারা বিজ্ঞাপন দেখছে তাদেরকে আরো জানার প্রতি উৎসুক করে তোলার প্রতি বেশী মনোযোগ দিন। তারা যেন অনুভব করে যে এই বিষয়ে আরো কিছু জানা দরকার। তাই, মূল বিষয়গুলোকে আকর্ষণীয়রূপে সংক্ষেপে তুলে ধরুন। তারা আরো জানতে পণ্যের খোজ নিবে।

৪. এমন কথায় শেষ করুন যা পাঠককে কোন কাজে আগ্রহী করে তোলে

শুরুর বাক্যের কথা আগেই বলেছিলাম, যেন পাঠককে বিজ্ঞাপনের দিকে টেনে নিয়ে আসে। এবারে বলছি শেষের বাক্যটি নিয়ে। এটি হতে হবে এমন যাতে করে বিজ্ঞাপনের দর্শক কোন একটি কাজে উৎসাহী হয়। তাদেরকে একটি কাজ দিন। তারা কিনবে, জানবে, নাকি অন্য কিছু করবে। এরকম একটি Call To Action রাখুব বিজ্ঞাপনের শেষ বাক্যে।

৫. আবার পড়ুন, আবার লিখুন

যদি একটি শব্দে ভুল থাকে সেই বিজ্ঞাপন আর কেউ পড়বে না। অনিচ্ছাকৃত ভুলের কারণে একটি বিজ্ঞাপন যা সার্থক হতে পারতো সেটিও ব্যার্থ হয়ে যায়। তাই, বারবার পড়ে দেখুন। ব্যাকরণগত ভুল বা, বানান ভুল থাকলে সেই বিজ্ঞাপন কেউই আর, পড়ে না। প্রথমবারে কিছু বিষয় চোখে নাও পড়তে পারে। তাই, প্রথমে বিজ্ঞাপনের খসড়া রচনা করে আবার সবকিছু চেক করুন, আবার লিখুন।

প্রয়োজনে কয়েকবার লিখে একই বিজ্ঞাপনের কয়েকটি ভার্সন তৈরি করে ফেলুন। এরপর সবগুলো ভার্সন থেকে সেরা বিজ্ঞাপনটি নির্বাচন করে সেটি প্রকাশ করুন। আপনি নিজে যদি ভালো বাংলা বা, ইংরেজী না জানেন, তাহলে এমন কাউকে ভাড়া করুন যে ভালো বাংলা বা, ইংরেজী জানে। সে বিজ্ঞাপনের ভাষাগত ভুলগুলো ধরিয়ে দেবে।

সময় থাকলে আরো পড়ুন-

 

1
(Visited 1,313 times, 1 visits today)

admin

Author: admin

বিভিন্ন বিষয় নিয়ে লেখার চেষ্টা করছি

আরো লেখা খুঁজুন

আপনার সক্রিয়তা পয়েন্টঃ

Related Posts

অনবসিত উচ্ছাস

রাফাত আহমেদ অসমাপ্ত এক বইয়ের গল্প, লেখকের লেখার গল্প আজ বলবো। বইয়ের নামে সরলতা আছে, আবার কঠিন বাস্তবতাও আছে। লেখক

বাস্তবটা তিক্ত

তোমাদের হাসিটাও যেন, শুধুমাত্র আমার কৃত্তিম সফলতা-তেই। বরাদ্দ করা আছে, সীমিত পরিসরে। তাতে আমার হাসি বিলুপ্তি ঘটুক না কেন!কেন জানি

বাস্তবতা

যে মানুষটা ছেড়ে যাওয়াতে আপনি পাগলের মতো নিজেকে অগুছালো করে ফেলছেন সে ঠিকি সুস্থ ভাবে অন্য কাওকে নিয়ে নিজের মতো

প্রকৃত জীবন

জীবন হলো এমন এক গল্প, যে গল্পের উদ্দেশ্য, চরিত্র, দৃশ্য উন্মোচন কি হবে? কোথায় হবে? সেটা কখনই আগে থেকেই বলাবাহুল্য

Leave a Reply