“চুনিয়া আমার আর্কেডিয়া” কবিতার ‘পাঠ-পরিচিতি’

0

“চুনিয়া আমার আর্কেডিয়া “কবিতাটি কবি রফিক আজাদের ‘চুনিয়া আমার আর্কেডিয়া ‘কাব্য থেকে সংকলিত হয়েছে। এটি একটি প্রতীকী গদ্য কবিতা। ” চুনিয়া “নামের একটি গ্রামের প্রতীকের মধ্য দিয়ে কবি মানুষকে সুন্দর ভাবে বাঁচার আহ্বান জানাচ্ছেন।

কবির কথায়, চুনিয়া একটি ছোট্ট আদিবাসী গ্রাম। শহর থেকে অনেক দূরে এর অবস্থান। মনোরম সবুজ প্রকৃতির পটভূমিতে স্থাপিত বলে চুনিয়া কখনো হিংস্রতা দেখে নি।

দেখে নি রক্ত পাত।

চুনিয়া শুধু জানে মানুষকে ভালোবাসতে।মানব সমাজের আজ যে হিংসা হানাহানি রক্ত পাত দেখা যায়, চুনিয়া তে এসব নেই।

সবাই এখানে তাই সুখে থাকে।

কবি মনে করেন, প্রতিটি মানুষই আসলে এরকম। সভ্য সমাজের অনেকেই এ-ই ধরনের স্নিগ্ধ সুন্দর গ্রাম কে অথবা গ্রামের মতো পরিবেশ কে বুকের মধ্যে লালন করে থাকেন।

চুনিয়া বিশ্বাস করে,মানুষ মারণাস্ত্র ফেলে, হিংসা -দ্বেষ ভুলে পরস্পর ভালো প্রতিবেশী হবে। কেননা মানবতার পক্ষে দাঁড়ানোই হচ্ছে মানব সভ্যতার মূল কথা।

এর থেকে শিক্ষা পাওয়া যায় যে;আমাদের সকলের উচিৎ মানবতার পক্ষে দাঁড়ানো এবং ভালো ব্যবহার করা। 

 


আরো দেখুন-


56
বিজ্ঞাপনঃ মিসির আলি সমগ্র ১: ১০০০ টাকা(১৪% ছাড়ে ৮৬০)

0

নিচের লেখাগুলো আপনার পছন্দ হতে পারে

শুধু তুমি

তোমার মত কেহ নাই তাইতো আমি তোমায় চাই তুমি আমার আপনজনা, ভাই, ভাই, ভাই।   যে জন তার আপনজনা ভালবাসে

মৃত্যু (৯) (প্রেমের কবিতা)

আমি একজনকে ভালবাসি।একদিন বললাম, এত বেশি ভালবেসোনা এত বেশি ভালবাসলে আমি মরে যাব। বলে তুমি মরে যাও আমি তো সেটাই

কাল কটি

কাল কোটওয়ালাদের কেনা ভালবাসে?  কাল কোটওয়ালাদের সবাই ভালবাসে।আমি একদিন এক কালকোটওয়ালীকে জিজ্ঞেস করেছিলাম, এই তুমি কেমন আছ? বলে, কেন ভাল

আল্লাহ (১৭)

আল্লাহ আল্লাহ কর ভাই আল্লাহ ছাড়া উপায় নাই না গাহিলে কি হবে? জাহান্নামে হবে ঠাঁই যাই,সেই কথাটি বলে যাই।  

One Reply to ““চুনিয়া আমার আর্কেডিয়া” কবিতার ‘পাঠ-পরিচিতি’”

Leave a Reply